জীবনের এই পর্যায়ে এসে একটা কথা খুব অনুভব করি এবং জোর দিয়েই বলি:
“যে কাজের যোগ্য তুমি নও, সে দায়িত্ব নিওনা। তবে যে দায়িত্ব তুমি নাও, সেটা অবশ্যই দায়িত্বশীলতার সাথে পালন করো। দায়িত্ব নেয়ার মাঝে সার্থকতা নেই, সার্থকতা পালনের মাঝে। দায়িত্ব নেয়ার পর মাঝপথেও যদি মনে হয় তুমি পারবেনা, স্বেচ্ছায় উঠে আসো, যোগ্যতর অন্য কাউকে জায়গা করে দাও, তোমার একার গাফলতি যেন দশজনের ভোগান্তির কারণ না হয়। একটা কথা দশবার ঘুরিয়ে ‘হা’ বলার চেয়ে একবার ‘না’ বলে দেওয়া ঢের উত্তম; সুন্দর করে ‘না’ বলতে পারাটাও একটা শিল্প, এই শিল্পের চর্চা করতে হয়। ‘দায়িত্বহীনতা’ কখনো মুমিনের পরিচয় হয়না, হতে পারেনা। একজন মুসলিমের জন্য এরচে বেশি রিমাইন্ডার বোধহয় দরকার পড়েনা:

– ‘যে কাজ করবে, ইহসানের সাথে করবে।’
– ‘প্রত্যেক দায়িত্বশীল তার দায়িত্ব সম্পর্কে জিজ্ঞাসিত হবে।’